আজ ১০ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ | ২৪শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | রাত ১২:০৭

  • বাংলা English
সদ্য :

☉ নব নির্বাচিত এমপিকে ৬ ইউপি চেয়ারম্যানের ফুলেল শুভেচ্ছা☉ প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত জাহাঙ্গীরের দাফন সম্পন্ন \ ঘাতক সিরাজুল গ্রেপ্তার☉ মঠবাড়িয়ায় বাল্য বিয়ে রোধে তারুণ্যের কন্ঠ অনুষ্ঠিত☉ অবাধ ও সুষ্ঠ নির্বাচন বানচালকারীদের কোন ছাড় নয়☉ বখাটে গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবিতে বড়মাছুয়ায় শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মানববন্ধন☉ মঠবাড়িয়া-বড়মাছুয়া সড়কে কার্পেটিং কাজে আবারও নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহার : পিচ-পাথর নিয়ে স্থানীয়দের ক্ষোভ☉ বিশিষ্ট শিক্ষানুরাগী আবদুর রশিদ মানিক মিঞা’র দাফন সম্পন্ন☉ ছাত্রলীগ নেতা সোহেলের নিঃশর্ত মুক্তি ও মামলা প্রতাহারের দাবিতে মানববন্ধন☉ মঠবাড়িয়ায় থানার ওসি প্রত্যাহার☉ ১৮ মামলার আসামী ফল সোহেলসহ গ্রেপ্তারকৃত-১২জন জেল হাজতে

বাহরাইন থেকে পালিয়ে আসা প্রতারক হাফিজ মঠবাড়িয়ায় গ্রেফতার|

বাহরাইন থেকে পালিয়ে আসা প্রতারক হাফিজ মঠবাড়িয়ায় গ্রেফতার|

মঠবাড়িয়া সংবাদ ডেস্ক: বাহরাইন থেকে ৩৯ লাখ টাকা চুরি করে পালিয়ে আসা প্রতারক হাফিজ মোল্লা (৩৫)কে অবশেষে গ্রেফতার করেছে মঠবাড়িয়া থানা পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাতে স্থানীয় ছোট মাছুয়া শ্বশুরবাড়ি থেকে হাফিজকে পুলিশ গ্রেফতার করে। হাফিজ উপজেলার পশ্চিম রাজপারা গ্রামের আবুল হাসেম মোল্লার ছেলে।
মামলা সূত্রে জানাযায়, গত ৯ বছর পূর্বে হাফিজ বাহারাইন মানামা সিটিতে ওয়াদি মারমারা বুটিক নামক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে চাকরি নেয়। চাকরীর এক পর্যায় প্রতিষ্ঠানের বাংলাদেশী মালিক আব্দুল মজিদ ১৩/০৫/২০১৫ইং তারিখ হাফিজকে প্রতিষ্ঠানে রেখে ছুটিতে দেশে আসে। ২১ মাস পর আব্দুল মজিদ গত ৩/৩/২০১৭ ইং তারিখ পুণরায় বাহারাইন প্রতিষ্ঠানে ফিরে যান। পরে হাফিজের কাছে প্রতিষ্ঠানের হিসাব চাইলে গত ২৮/০৩/২০১৭ ইং তারিখ হিসাব না দিয়ে হাফিজ পালিয়ে বাংলাদেশে চলে আসে। এঘটনায় ওই প্রতিষ্ঠানের মালিকের বড় ভাই আব্দুল জব্বার হাওলাদার বাদী হয়ে হাফিজকে একমাত্র আসামী করে মঠবাড়িয়া সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে মামলা দায়ের করেন। বিজ্ঞ আদালত মামলাটি পিরোজপুর জেলা গোয়েন্দা সংস্থাকে (ডিবি) তদন্তের আদেশ দেন। জেলা গোয়েন্দা সংস্থার অফিসার ইনচার্জ মো. জাহাঙ্গীর হোসেন তদন্তে উল্লেখিত টাকা চুরির প্রমান পাওয়ায় ২১/১০/২০১৭ ইং তারিখ আদালতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন।
এছাড়া ওই প্রতারক হাফিজ মোল্লা বাহারাইন থাকাকালীন তার ভাইয়ের ছেলে আব্দুর রহমানের মাধ্যমে উপজেলার পশ্চিম রাজপারা গ্রামের আ. মজিদ ফকিরের ছেলে ইব্রাহীমের কাছ থেকে ৪ লাখ ৫০ হাজার, উত্তর মিঠাখালী গ্রামের আনোয়ার হোসেনের পুত্র লুৎফর রহমানের কাছ থেকে ৩ লাখ ৬০ হাজার এবং দক্ষিণ বড়মাছুয়া গ্রামের মৃত. শৈলেন সিকদারের ছেলে সুমন সিকদারের কাছ থেকে ৪ লাখ ৫০ হাজার টাকা নিয়ে জাল ভিসায় বাহারাইন পাঠায়। পরে ওই তিনজনই প্রতারিত হয়ে বাহারাইন থেকে দেশে ফেরত আসে। এঘটনায় প্রতারিত তিনজনই হাফিজকে আসামী করে পৃথক আরও তিনটি মামলা করেন।
এছাড়াও প্রতারক হাফিজ মোল্লার বিরুদ্ধে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের যুবকদের বিদেশ নেবার কথা বলে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ রয়েছে।
মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ কেএম তারিকুল ইসলাম জানান, আদলতের ওয়ারেন্ট পেয়ে হাফিজকে গ্রেফতার করে শুক্রবার সকালে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

Comments

comments

আরও পড়ুন

নব নির্বাচিত এমপিকে ৬ ইউপি চেয়ারম্যানের ফুলেল শুভেচ্ছা
নব নির্বাচিত এমপিকে ৬ ইউপি চেয়ারম্যানের ফুলেল শুভেচ্ছা
নব নির্বাচিত এমপিকে ৬ ইউপি চেয়ারম্যানের ফুলেল শুভেচ্ছা
প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত জাহাঙ্গীরের দাফন সম্পন্ন \ ঘাতক সিরাজুল গ্রেপ্তার
প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত জাহাঙ্গীরের দাফন সম্পন্ন \ ঘাতক সিরাজুল গ্রেপ্তার
প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত জাহাঙ্গীরের দাফন সম্পন্ন \ ঘাতক সিরাজুল গ্রেপ্তার
মঠবাড়িয়ায় বাল্য বিয়ে রোধে তারুণ্যের কন্ঠ অনুষ্ঠিত
মঠবাড়িয়ায় বাল্য বিয়ে রোধে তারুণ্যের কন্ঠ অনুষ্ঠিত
মঠবাড়িয়ায় বাল্য বিয়ে রোধে তারুণ্যের কন্ঠ অনুষ্ঠিত
অবাধ ও সুষ্ঠ নির্বাচন বানচালকারীদের কোন ছাড় নয়
অবাধ ও সুষ্ঠ নির্বাচন বানচালকারীদের কোন ছাড় নয়
অবাধ ও সুষ্ঠ নির্বাচন বানচালকারীদের কোন ছাড় নয়
বখাটে গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবিতে বড়মাছুয়ায় শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মানববন্ধন
বখাটে গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবিতে বড়মাছুয়ায় শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মানববন্ধন
বখাটে গ্রেপ্তার ও শাস্তির দাবিতে বড়মাছুয়ায় শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মানববন্ধন
মঠবাড়িয়া-বড়মাছুয়া সড়কে কার্পেটিং কাজে আবারও নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহার : পিচ-পাথর নিয়ে স্থানীয়দের ক্ষোভ
মঠবাড়িয়া-বড়মাছুয়া সড়কে কার্পেটিং কাজে আবারও নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহার : পিচ-পাথর নিয়ে স্থানীয়দের ক্ষোভ
মঠবাড়িয়া-বড়মাছুয়া সড়কে কার্পেটিং কাজে আবারও নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহার : পিচ-পাথর নিয়ে স্থানীয়দের ক্ষোভ